পেয়াঁজের সরবরাহ বেড়েছে হিলিতে,কমেছে দাম

দিনাজপুরের হিলি স্থলবন্দরে পাইকারি ও খুচরা বাজারে সরবরাহ বেড়েছে দেশি পেয়াঁজের। সরবরাহ বেড়ে যাওয়ায় হিলির বাজারে কমতে শুরু করেছে সব ধরনের পেয়াঁজের দাম। প্রকারভেদে প্রতি কেজি পেয়াঁজের দাম কমেছে ২০ থেকে ২৫ টাকা কেজি দরে। দাম কমতে শুরু করায় স্বস্তি ফিরেছে সাধারণ ক্রেতাদের মাঝে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, হিলি খুচরা ও পাইকারি বাজারে মেহেরপুরের সুখসাগর, মিশরীয় এবং ভারতীয় পাটনা জাতের পেয়াঁজ বিক্রি হচ্ছে। গত দুই দিনের থেকে সুখসাগর পেয়াঁজের সরবরাহ বেড়েছে অনেক। দেশিয় সুখসাগর পেয়াঁজ গত দুই দিন আগে বাজারে বিক্রি হয়েছে ৭৫ থেকে ৮০ টাকা কেজি দরে, সেই পেয়াঁজ সোমবার কেজিতে ১০ থেকে ১৫ টাকা কমে বিক্রি হচ্ছে ৬৫ থেকে ৭০ টাকা কেজি দরে।

অন্যদিকে মিশরীয় পেয়াঁজ বিক্রি হচ্ছে ৬০ টাকা কেজি দরে যা দুই দিন আগে ছিল ৮০ টাকা কেজিতে। এছাড়াও বিভিন্ন ভাবে সরবরাহ হওয়া ভারতীয় পেয়াঁজ ১১৫ টাকা কেজি থেকে কমে বিক্রি হচ্ছে ৯০ থেকে ৯৫ টাকা কেজি দরে।

দাম কমার কারণ হিসেবে ব্যবসায়ীরা বলছেন, গত কয়েক দিন আবওহায়া খারাপ থাকায় দেশের কৃষকরা মাঠ থেকে পেয়াঁজ তুলতে পারেনি যে কারনে চাহিদার তুলনায় সরবরাহ অনেকটাই কমে গেছিলো। তবে দুই দিন থেকে আবারও দেশিয় মেহেরপুরের পেয়াঁজের সরবরাহ বেড়ে যাওয়ায় দাম কমতে শুরু করেছে। বেচা-কেনাও ভালো হচ্ছে বাজারে।

ক্রেতারা জানান, পেয়াঁজের দাম গত দুইদিনের তুলনায় অনেকটাই কমতে শুরু করেছে। এরকম কম দামে আমরা কিনতে পারলে আমাদের জন্য সুবিধা হবে।

বৈশাখী নিউজ/ জেপা