উড়ে উড়ে ডাক্তার পৌঁছে যাবেন রোগীর কাছে!

ইংল্যান্ডের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের এক গ্রামে পাহাড় থেকে পড়ে মারাত্মক আহত হয় ১০ বছরের একটি মেয়ে৷ তাৎক্ষণিক চিকিৎসা দরকার৷ এ খবর পান প্রযুক্তিবিদ রিচার্ড ব্রাউনিং৷ কিন্তু কী উপায়ে দ্রুত পৌঁছানো যায় আহত মেয়েটির কাছে?

একটি বিশেষ স্যুট গায়ে দেন ব্রাউনিং৷ বৈদ্যুতিক এ স্যুটটির সুইচ চালু করার সাথে সাথে উঁচু পর্বতের উপর দিয়ে ঠিক ৯০ সেকেন্ডে ডাক্তারসহ গন্তব্যে পৌঁছে যান তিনি৷

অনেকেই হয়তো ভাবছেন হলিউডের কোনো মুভির গল্প এটি৷ না, আসলে এটি যুক্তরাজ্যের গ্র্যাভেটি ইন্ডাস্ট্রি নামে একটি প্রযুক্তি কম্পানির উদ্যোগ৷ কম্পানিটি ডাক্তারদের জন্য আবিষ্কার করেছে এমন জেট স্যুট৷ পাহাড়ি বা প্রত্যন্ত অঞ্চলে চিকিৎসা পৌঁছে দিতেই তাদের এ উদ্যোগ৷

আহত বা অসুস্থ রোগীর কাছে দ্রুত ডাক্তার পৌঁছালে রোগীর সেরে ওঠার সম্ভাবনা বেড়ে যায়৷ গ্র্যাভেটি ইন্ডাস্ট্রির উদ্যোগটির কার্যকারিতা যাচাই করতে প্রথমবারের মতো পাহাড় থেকে পড়ে যাওয়া মেয়েটির চিকিৎসা দিতে যান প্যারামেডিকেরা৷

রোগীর কাছে দ্রুত পৌঁছাতে জেট স্যুটটি অনেক কার্যকর৷ এটি জীবন বাঁচাতে সাহায্য করবে, বলেন হেলিকপ্টার প্যারামেডিক অ্যান্ডি লসন৷

স্যুটটি ঘণ্টায় ৫১ কিলোমিটার বেগে ১২ হাজার ফুট ওপর দিয়ে উড়তে পারে বলে জানায় প্রতিষ্ঠানটি৷

ইংল্যান্ডের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের লেক ডিস্ট্রিক্ট অঞ্চল হাইকারদের খুব প্রিয়৷ এ কারণে প্রচুর হাইকার যান সেখানে এবং প্রায়ই দুর্ঘটনাও ঘটে৷ পর্বতবেষ্টিত এ অঞ্চলে ভবিষ্যতে ডাক্তাররা জেট স্যুট পরে দুর্গম পথ পাড়ি দিয়ে কম সময়ে রোগীর কাছে পৌঁছাবেন৷ সূত্র : ডয়েচে ভেলে।

বৈশাখী নিউজফারজানা