আমি আসলে ইসলামের বিরুদ্ধে কোনো আক্রমণাত্মক বক্তব্য দিইনি

1

ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল ম্যাক্রোঁ ইসলামের বিরুদ্ধে কোনো আক্রমণাত্মক বক্তব্য দেননি বলে দাবি করে বলেছেন, আমি আসলে ইসলামের বিরুদ্ধে কোনো আক্রমণাত্মক বক্তব্য দিইনি, আমি বক্তব্য দিয়েছি ইসলামিক সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে।

প্যারিস ভিত্তিক সাপ্তাহিক একটি ম্যাগাজিনকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে তিনি এসব কথা বলেন। গতকাল শুক্রবার (২০ নভেম্বর) ওই সাক্ষাৎকারটি প্রকাশ করেছে ফ্রান্সের ম্যাগাজিন জিউন আফ্রিক। সাক্ষাতকারে ফ্রান্স প্রেসিডেন্ট দাবি করেন, তার ওই বক্তব্য মুসলিম ব্রাদারহুড বিকৃত করে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়েছে।

ম্যাক্রোঁ বলেন, আমি যখন ইসলামী মৌলবাদের বিরুদ্ধে আক্রমণ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি, তখন আমার বক্তব্য বিকৃত করা হয়। এটা মুসলিম ব্রাদারহুডের মাধ্যমে তুরস্ক ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে দেয়।  যার কারণে এটা জনমতের ওপর ব্যাপকভাবে প্রভাব সৃষ্টি করে।  এটা স্বাভাবিকভাবেই সাহারাসহ আফ্রিকাতেও তার প্রভাব পড়েছে।

 

ওই সাক্ষাৎকারে তুরস্কের সঙ্গে রাশিয়ার বিরুদ্ধে সরাসরি বক্তব্য দেন ম্যাক্রোঁ। তার অভিযোগ, আফ্রিকায় এন্টি ফ্রান্স সেন্টিমেন্ট গড়ে তুলতে তুরস্কের সঙ্গে রাশিয়াও অর্থায়ন করছে। তুরস্কের পাশাপাশি রাশিয়াও ফ্রান্সের মূল্যবোধের বিরুদ্ধে আফ্রিকায় জনমত গঠন করেছে বলে দাবি করেন তিনি।

উল্লেখ্য, গত কয়েক মাসের মধ্যে সিরিয়া, লিবিয়া ও ভূমধ্যসাগরসহ বিভিন্ন ইস্যুতে তুরস্কের সঙ্গে ব্যাপক উত্তেজনাকর পরিস্থিতিতে রয়েছে ফ্রান্স। তুরস্কের বিভিন্ন পদক্ষেপে সবার আগে সরব হচ্ছে ফ্রান্স। এমনকি ইউরোপীয় ইউনিয়ন যাতে তুরস্কের বিরুদ্ধে অর্থনৈতিক অবরোধ আরোপ করে সেজন্য অগ্রণী ভূমিকা পালন করেন এমানুয়েল ম্যাক্রোঁ। কিন্তু শেষ পর্যন্ত ইউরোপীয় ইউনিয়ন বিভিন্ন দিক বিবেচনা করে এখনই তুরস্কের বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ নিতে সম্মত হয়নি।

বৈশাখী নিউজ/ বিসি