ভ্যাকসিন নিয়েছে জার্মানিতে ১ কোটি মানুষ

করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিনের সীমাবদ্ধতা নিয়ে নানা আলোচনা-সমালোচনার মধ্যেই জার্মানিতে এ ভ্যাকসিন নিয়েছে ১ কোটি মানুষ। শনিবার দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী ইয়েন্স স্পান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী ইয়েন্স স্পান শনিবার বলেন, ভ্যাকসিন নেওয়া ১ কোটি মানুষের মধ্যে ৪৩ লাখ মানুষ উভয় ডোজ নিয়েছেন। যারা উভয় ডোজই পেয়েছেন তারা পুরোপুরি নিরাপদ।

২০২০ সালের ডিসেম্বর মাসের শেষ নাগাদ করোনা ভ্যাকসিন দেওয়া শুরু করে জার্মানি। টিকাদান কর্মসূচি শুরুর পর পরই সমালোচনার মুখে পড়ে দেশটি। যথেষ্ট ভ্যাকসিন মজুদ আছে কিনা, কাদের, কীভাবে ভ্যাকসিন দেওয়া হবে এসব বিষয়ে শুরুতে নিশ্চিত হতে না পারায় জনগণের মধ্যে হতাশা তৈরি হয়। তবে সব সংশয় কাটিয়ে ধীরে ধীরে টিকাদানের বিষয়টি এগিয়ে নিয়ে যায় দেশটি।

ভ্যাকসিন গ্রহণকারীদের দৈনন্দিন চলাফেরায় বিধিনিষেধ শিথিল করার কথা ভাবছে কর্তৃপক্ষ। স্বাস্থ্যমন্ত্রী জানান, যারা এরই মধ্যে করোনা ভ্যাকসিনের দুটি ডোজই গ্রহণ করেছেন তারা পুরোপুরি নিরাপদ; এমনটা বিবেচনায় নিয়ে তাদের জীবনযাত্রা শিথিল করার বিষয়টি সরকার বিবেচনা করছে।

এদিকে, করোনাভাইরাসের তৃতীয় ঢেউয়ের মুখে পড়েছে জার্মানি। ক্রমাগত বাড়তে থাকা সংক্রমণের হার নিয়ন্ত্রণ করতে না পারলে স্বাস্থ্য ব্যবস্থা ভেঙে পড়তে পারে বলে আশঙ্কা চিকিৎসকদের।

গত বছর করোনাভাইরাস ধরা পড়ার পর এখন পর্যন্ত দেশটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ২৯ লাখ। আর করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ৭৭ হাজারেরও বেশি মানুষের। খবর ডিডব্লিউ

বৈশাখী নিউজজেপা