অনলাইন গেমে প্রতারকদের ফাঁদ! বাঁচবেন কী ভাবে?

করোনাভাইরাসের কারণে বিশ্ব অর্থনীতিতে বড়সড় প্রভাব পড়লেও ভিডিও গেম দুনিয়ায় উল্টো ছবি দেখা গিয়েছে। সামাজিক দূরত্বে নিয়মাবলীতে যত কড়াকড়ি হয়েছে ততই ফুলে ফেঁপে উঠেছে দুনিয়া ব্যাপী ভিডিও গেম ইন্ডাস্ট্রি। এই সময় ভার্চুয়াল দুনিয়ায় ঢুকে স্বস্তির স্বাদ খুঁজছেন অনেকেই। আর এই জন্যই গত এক দশকে সবথেকে বেশি ভিডিও গেম বিক্রির রেকর্ড হয়েছে গত বছর।

বেশি মানুষের মধ্যে ভিডিও গেমের জনপ্রিয়তা বাড়তে থাকার কারণেই প্রতারকদের রমরমাও শুরু হয়েছে সেখানে। পরিস্থিতির সুযোগ নিয়ে প্রতারণার ফাঁদ পেতেছে একদল অসাধু মানুষ। বিভিন্ন অনলাইন গেমে ইন-গেম কারেন্সি ব্যবহারের সুযোগ নিয়ে শুরু হয়েছে প্রতারণা।

এই ধরণের প্রতারণা সম্পর্কে তরুন প্রজন্ম অবগত না হওয়ার কারণে প্রতারকদের কাজ সহজ হচ্ছে। অনলাইন গেমে প্রতারকদের হাত থেকে নিজেকে ও প্রিয়জনদের কীভাবে রক্ষা করবেন? দেখে নিন:

> কোন গেইমের মধ্যে কিছু কেনাকাটার প্রয়োজন হলে সেই গেইমের অফিশিয়াল ওয়েবসাইট ব্যবহার করুন। কোন লিঙ্কে ক্লিক করে অনলাইন গেমের কেনাকাটা করবেন না।

> গেইমের অফারের নাম করে আপনার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট অথবা ব্যক্তিগত তথ্য জানতে চেয়ে কোন ইমেল অথবা এসএমএস এলে তা অগ্রাহ্য করুন। কোন গেমের অফিশিয়াল ওয়েবসাইট থেকে এই ধরনের মেসেজ পাঠানো হয় না।

> অনলাইন গেইমে লগ করার পাসওয়ার্ড কারও সঙ্গে শেয়ার করবেন না। এই তথ্য সব সময় ব্যক্তিগত রাখুন।

> অনলাইন গেইম অ্যাকাউন্টে শক্তিশালী পাসওয়ার্ড ব্যবহার করুন। পাসওয়ার্ডে ছোট ও বড় হাতের অক্ষরের সঙ্গে ব্যবহার করুন সংখ্যা ও চিহ্ন।

> এই সুরক্ষা ফিচার এনেবেল করলে আপনার পাসওয়ার্ড কারও হাতে চলে গেলেও লগ ইনের জন্য বিশেষ কোড প্রয়োজন হবে। ফলে সুরক্ষিত থাকবে আপনার গেমিং অ্যাকাউন্ট।

>আপনার গেমিং অ্যাকাউন্টের পাসওয়ার্ড যাচাইয়ের নামে কোন ইমেল অথবা এসএমএস এলে তা এড়িয়ে চলুন।

> ডেবিট কার্ডের থেকে ক্রেডিট কার্ডে সুরক্ষা বেশি থাকে। এই কারণে কেনাকাটার জন্য ডেবিট কার্ড ব্যবহার না করাই ভালো।

সূত্র:এই সময়

বৈশাখী নিউজ/ বিসি