কোভিড সংক্রমণ বিশ্বজুড়েই বাড়ছে

বিশ্বে করোনা সংক্রমণ প্রতিদিনই নতুন নতুন রেকর্ড সৃষ্টি করছে। গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বব্যাপী আরও ৯ হাজার ২৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ সময় রোগী শনাক্ত হয়েছে ৩৬ লাখ ৩২ হাজার ৮৬৬ জন। এর আগে শুক্রবার ৮ হাজার ৮৫৭ জনের মৃত্যু এবং ৩৪ লাখ ৫৯ হাজার ৭৯৪ জন রোগী শনাক্ত হয়েছিল।

বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত, মৃত্যু ও সুস্থতার হিসাব রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারস থেকে শনিবার (২২ জানুয়ারি) সকালে এসব তথ্য জানা যায়।

ওয়ার্ল্ডোমিটারসের সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বব্যাপী এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছে ৩৪ কোটি ৬৮ লাখ ৫৬ হাজার ৪৩২ জন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৫৬ লাখ ৩ হাজার ১৬০ জনের।

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় সবচেয়ে বেশি যুক্তরাষ্ট্রে আক্রান্ত হয়েছে ৭ লাখ ৭৯ হাজার ৩৬ জন এবং মারা গেছে ২ হাজার ৭৭৭ জন। আক্রান্তের দিক থেকে দ্বিতীয় অবস্থানে পাশের দেশ ভারত থাকলেও মৃত্যুতে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে রাশিয়া। রাশিয়ায় মৃত্যু সংখ্যা ৬৯২ জন এবং আক্রান্ত ৪৯ হাজার ৫১৩ জন। অপরদিকে ভারতে মৃত্যু ৪৮৯ জন এবং আক্রান্ত ৩ লাখ ৩৫ হাজার ৪৫৮ জন।

যুক্তরাজ্যে আক্রান্ত ৯৫ হাজার ৭৮৭ জন, মৃত্যু ২৮৮ জন। ইতালিতে আক্রান্ত ১ লাখ ৭৯ হাজার ১০৬ জন ও মৃত্যু ৩৭৩ জন। ফ্রান্সে আক্রান্ত ৪ লাখ ৮৫১ জন ও মৃত্যু ২৩৩ জন। কলম্বিয়ায় আক্রান্ত ৩১ হাজার ৩৯ জন ও মৃত্যু ১৯৭ জন। জার্মানিতে আক্রান্ত ১ লাখ ৩৮ হাজার ৬৩৪ জন ও মৃত্যু ১৭৫ জন। ব্রাজিলে মৃত্যু ৩৯৬ জন ও আক্রান্ত ১ লাখ ৬৮ হাজার ৮২০ জন।

এছাড়া তুরস্কে ১৮১ জন, স্পেনে ১৪২, আর্জেন্টিনা ১৬০, কলম্বিয়িা ১৯৭, মেক্সিকোতে ২৭৮জন, পোল্যান্ডে ২৪৮, ইউক্রেন ১৫০, দক্ষিণ অফ্রিকা ১০৩, ফিলিপাইন ১৫৬, কানাডায় ১৪৯, পেরু ১২৬, ভিয়েতনামে ১৭৭ এবং গ্রিসে ১১০ জন মারা গেছে।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। এরপর ২০২০ সালের ১১ মার্চ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) করোনাকে ‘বৈশ্বিক মহামারি’ঘোষণা করে। এর আগে একই বছরের ২০ জানুয়ারি বিশ্বজুড়ে জরুরি পরিস্থিতি ঘোষণা করে সংস্থাটি।

বৈশাখী নিউজ/ এপি