ইসরাইলি সামরিক বাহিনী গাজায় ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে

গাজা উপত্যকায় বেশ কয়েকটি ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে ইসরাইলি সামরিক বাহিনী। এর আগে গাজা থেকে রকেট হামলা হয়েছে বলে দাবি করেছে ইসরাইল।

একদিন আগেই দুদিনের ইসরাইল সফরে আসেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। এছাড়াও সৌদি আরব ও ফিলিস্তিন সফরে যান তিনি। ইতিমধ্যে সৌদি আকাশপথ ইসরাইলের জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়ার ঘোষণা এসেছে।-খবর আল-জাজিরার

শনিবার ইসরাইলি সামরিক বাহিনী বলছে, গাজার মধ্যাঞ্চলে হামাস পরিচালিত রকেট-তৈরির স্থাপনায় হামলা চালানো হয়েছে।
অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকার শাসন করছে প্রতিরোধ আন্দোলন হামাস। গাজা থেকে আল-জাজিরার সাংবাদিক ইউমনা আল-সাঈদ বলেন, বিস্ফোরণের শব্দে লোকজনের ঘুম ভেঙেছে।

দুটি ভিন্ন অঞ্চলে এক ডজনেরও বেশি ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে ইসরাইল।

তবে এ হামলায় কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। তিনি বলেন, এখানে বিভিন্ন স্থাপনা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। হামলাস্থলে প্রচুর আগুন দেখছি। কৃষি অঞ্চলেই বেশির ভাগ ক্ষেপণাস্ত্র এসে পড়েছে।

হামাসের মুখপাত্র ফাওজি বারহাউম বলেন, বাইডেনের সফরের পরেই ইসরাইলের এই হামলা কোনো কাকতালীয় ঘটনা না।

ইহুদিবাদী দেশটিতে প্রেসিডেন্ট বাইডেনের সফরের পরপরই এই উত্তেজনা বাড়ানো হয়েছে। এতে আমেরিকার সমর্থন ও উৎসাহ রয়েছে। দশকের পর দশক ধরে ইসরাইলি আগ্রাসন ও অপরাধে যুক্তরাষ্ট্র যেভাবে সহায়তা দিয়ে আসছিল, এবারেও একই রকম ঘটনা ঘটেছে।

আসন্ন রকেট হামলা নিয়ে জনগণকে সতর্ক করতে দক্ষিণাঞ্চলীয় ইসরাইলে সাইরেন শোনা গেছে। ইসরাইলি সামরিক বাহিনী বলছে, একটি রকেট ভূপাতিত করা হয়েছে। আর বাকি দুটি খোলা জায়গায় গিয়ে পড়েছে।

তবে এখন পর্যন্ত কেউ সেই রকেট হামলার দায় স্বীকার করেনি।

বৈশাখী নিউজ/ ইডি