সিলেটে গাড়ি চাপায় প্রাণ গেল স্কুলছাত্রীর

সিলেট-ঢাকা মহাসড়কের ওসমানীনগরে গাড়ি চাপায় বৃষ্টি দাস নামে এক স্কুল ছাত্রীর মৃত্যু হয়েছে। শনিবার (২৮ মে) সকালে প্রাইভেট পড়তে যাওয়ার পথে উপজেলার কাগজপুরে পথে এ দুর্ঘটনাটি ঘটে।

নিহত বৃষ্টি দাস উপজেলার গোয়ালাবাজার ইউনিয়নের ভাগলপুর গ্রামের মদন দাশের মেয়ে এবং স্থানীয় বেগমপুর শরৎসুন্দরী উচ্চ বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ শ্রেণীর শিক্ষার্থী ছিলেন।

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, এদিন সকালে ব্যাগে বই-খাতা নিয়ে পড়তে যাচ্ছিলেন বৃষ্টি দাস। বৃষ্টির স্কুল ব্যাগ ছিটকে সড়কের এক পাশে। আরেক প্রান্তে পড়েছিল নিথর দেহ। স্থানীয়রা থানায় খবর পুলিশ এসে মরদেহ উদ্ধার করে।

স্থানীয়রাদের ধারণা, অজ্ঞাত যানবাহনের বৃষ্টি দাশকে চাপা দিয়ে পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে শেরপুর হাইওয়ে এবং ওসমানীনগর থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

এ ব্যাপারে শেরপুর হাইওয়ে পুলিশের পরিদর্শক পরিমল চন্দ্র দেব বলেন, ছাত্রলী নিহতের খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। নিহতের পরিবারের অভিযোগের প্রেক্ষিতে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এদিকে, মর্মান্তিক দুর্ঘটনায় বৃষ্টি দাসের মৃত্যুতে তার এলাকায় ও বেগমপুর শরৎ সুন্দরী উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের মধ্যে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নজরুল ইসলাম বলেন, প্রাইভেট পড়তে যাওয়ার পথে অজ্ঞাত গাড়ি চাপায় তার স্কুলের ষষ্ঠ শ্রেনীর শিক্ষার্থী বৃষ্টি নিহত হয়েছেন। তার মৃত্যুতে শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা মর্মাহত। এই মৃত্যুর জন্য দায়ী গাড়ির চালককে খুঁজে বের করে আইনের আওতায় আনার জন্য পুলিশের কাছে দাবি জানান তিনি।

বৈশাখী নিউজ/ ইডি