অর্থনীতি বাঁচাতে চা খাওয়া কমানোর আহ্বান পাকিস্তানি সরকারের

অর্থনীতি সচল রাখার স্বার্থে পাকিস্তানের জনগণকে চা পানের পরিমাণ কমানো আহ্বান জানিয়েছে দেশটির সরকার। দেশটির পরিকল্পনামন্ত্রী আহসান ইকবাল এ আহ্বান জানান।

মূলত চা আমদানির পেছনে ব্যয় হওয়া বিপুল পরিমাণ বৈদেশিক মুদ্রা সাশ্রয়ের মাধ্যমে দেশের অর্থনীতি সচল রাখতে নাগরিকদের প্রতি এমন বার্তা দেন মন্ত্রী।

আহসান ইকবাল মনে করেন, তার দেশের জনগণ দিনে কয়েক কাপ চা কম পান করলে তাতে পাকিস্তানের উচ্চ আমদানি খরচ কমবে। পাকিস্তান বিশ্বের বৃহত্তম চা আমদানিকারক দেশ। গত বছর দেশটি ৬০ কোটি ডলারের বেশি মূল্যের চা আমদানি করে।

আহসান ইকবাল বলেন, আমি দেশবাসীর প্রতি আবেদন জানাই, তারা যেন চা পানের পরিমাণ এক-দুই কাপ কমিয়ে দেন। এতে আমদানি ব্যয় কমবে। কারণ আমরা ঋণ করে চা আমদানি করি।

পাকিস্তানের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ দ্রুত কমছে। এমন প্রেক্ষাপটে দেশটির জনগণকে চা পানের পরিমাণ কমাতে বলেছে সরকার।

উল্লেখ্য, গত ফেব্রুয়ারিতে পাকিস্তানের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ ছিল প্রায় ১ হাজার ৬০০ কোটি ডলার। জুনের প্রথম সপ্তাহে তা কমে ১ হাজার কোটি ডলারে দাঁড়িয়েছে। বর্তমানে পাকিস্তানের বৈদেশিক মুদ্রার যে রিজার্ভ আছে, তা দিয়ে দুই মাসের আমদানি ব্যয়ও মেটানো সম্ভব নয়।

বৈশাখী নিউজ/ বিসি