বাঙালি সংস্কৃতির এক প্রাচীন শিল্পসত্তা হচ্ছে নৃত্য: সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী

সংস্কৃতিবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ এমপি বলেছেন, বাঙালি সংস্কৃতির এক প্রাচীন শিল্পসত্তা হচ্ছে নৃত্য। নৃত্যের ভাষা সর্বজনীন। তাই ভাষার গণ্ডি পেরিয়ে দেশে দেশে নৃত্যকলা তৈরি করেছে সাংস্কৃতিক মেলবন্ধন। শরীর, ছন্দ, মন, সংগীত- এসব নিয়ে নান্দনিক ছন্দিত শরীরী প্রতিমাই হলো নৃত্য। তাই নত্যকে বলা হয় সকল শিল্পের জননী।

প্রতিমন্ত্রী আজ বৃহস্পতিবার সকালে রাজধানীর বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির জাতীয় নাট্যশালা মিলনায়তনে মুজিব শতবর্ষ ও স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষ্যে ৭৫টি মৌলিক নতুন নৃত্য নিয়ে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি আয়োজিত তিন দিনব্যাপী (২০-২২ জানুয়ারি) জাতীয় নৃত্য উৎসব-২০২২ এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

প্রধান অতিথি বলেন, হৃদয়ের টানে ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় আমরা করোনাকালেও দেশের সাংস্কৃতিক অঙ্গন সচল রাখার চেষ্টা করেছি। বিশেষ করে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি এ সময় অনলাইনে অনেক অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে। সেজন্য বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমিকে জানাই আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা।

সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী বলেন, জাতীয় নৃত্য উৎসবে ঢাকার ৫০টি ও ঢাকার বাইরের ২৫টি দলসহ সর্বমোট ৭৫টি নৃত্যদল অংশগ্রহণ করেছে যেখানে নৃত্যশিল্পীদের বেশিরভাগই নবীন। তিনি বলেন, নবীনদের অংশগ্রহণের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের শ্রীবৃদ্ধি ঘটেছে। এর মাধ্যমে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি মুন্সিয়ানার পরিচয় দিয়েছে মর্মে প্রতিমন্ত্রী উল্লেখ করেন।

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকী’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তৃতা করেন বাংলাদেশ নৃত্যশিল্পী সংস্থার সভাপতি মিনু হক। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির সচিব মো. আছাদুজ্জামান।

বৈশাখী নিউজ/ বিসি