সাগর পাড়ে রাজ-পরীর রোমান্স

ফুরফুরা মেজাজে ঈদ উদযাপন করতে ঈদের আগের দিন সকালে কক্সবাজারের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করেন তারকা দম্পতি শরিফুল রাজ ও পরীমনি। সঙ্গে আছেন পরীর প্রিয় মানুষ তার নানা শামসুল হক। বিবাহিত জীবনে প্রথম ঈদ উদযাপনের জন্য রাজ-পরী বেছে নিয়েছেন সমুদ্রসৈকত।

বর্তমানে সেখানেই অবস্থান করছেন তারা। যার সবশেষ খবর মেলে হালের জনপ্রিয় এই চিত্রনায়িকার ফেসবুকে। সমুদ্রের ঢেউয়ের তালে তারা খুঁজে নিয়েছেন আনন্দ। সেসব ছবিও শেয়ার করেছেন ফেসবুকে। গতকাল বুধবার নায়িকা প্রকাশ করেছেন রোম্যান্টিক বেশ কিছু ছবি। যেখানে দেখা গেছে, সমুদ্রের তীরে দাঁড়িয়ে পরম আদরে একে-অপরকে জড়িয়ে আছেন রাজ-পরী। আবার ক্যামেরাবন্দি হয়েছেন চুম্বনরত অবস্থায়ও।

পরী-রাজের এই অপূর্ব প্রেমময় মুহূর্ত মুগ্ধ করেছে তাদের ভক্ত-অনুসারীদের। যার প্রমাণ মেলে ছবির রিঅ্যাকশনে। ইতিমধ্যেই ছবিগুলো শেয়ার করেছেন ১৭২ জন। আর রিঅ্যাকশন পরেছে ৫৭ হাজার। তবে পরী তার পোস্টের কমেন্ট বক্স বন্ধ রাখার কারণে সেখানে কেউ মন্তব্য করতে পারেননি।

আর ছবিগুলোর ক্যাপশনে পরী সুইডিশ অভিনেত্রী ইনগ্রিড বার্গম্যানের একটি উক্তি- ‘শব্দ যখন অতিরিক্ত হয়ে যায়, তখন কথাকে থামিয়ে দেওয়ার জন্য প্রকৃতির একটি প্রেমময় কৌশল হলো চুম্বন।’

এর আগে, ঈদের দিন তিনজনের (রাজ-পরী ও নানা শামসুল হক) কয়েকটি ছবি শেয়ার করে মনের অনুভূতি প্রকাশ করেছিলেন নায়িকা। ক্যাপশনে লিখেছিলেন, ‘রোজার ঈদটা বরাবরই আমি আমার পরিবারের সঙ্গে ঘরেই উদযাপন করেছি। করোনার বছরে প্রথমবার পরিবারের সবাইকে ছাড়া ঘরবন্দি একটা ঈদ কাটিয়েছিলাম। পরেরবারও পরিবারের সঙ্গে থাকতে পারিনি। এবার মনে হচ্ছে আল্লাহ পুরো দুনিয়াটা আমার করে দিয়েছেন… আলহামদুলিল্লাহ।’

তিনি আরও লিখেন, ‘আমার ঘর এখন রাজ। আর জীবনের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ মানুষটা আমার নানা ভাই। তারা আমার সঙ্গেই আছে, আমি পরিপূর্ণ।’

বৈশাখী নিউজ/ জেপা