ঢাকার যেসব এলাকায় করোনা রোগী দ্রুত বাড়ছে

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে বাংলাদেশে। আর সবচেয়ে ভয়ঙ্কর ত্রাস তৈরি করেছে ঢাকায়। করোনার জন্য ঢাকা এখন হটস্পট। দেশের অন্য স্থানগুলোর চেয়ে এখানেই বেশি বাসা বেঁদেছে প্রাণঘাতী এ ভাইরাস।

সোমবার (২০ এপ্রিল) একদিনে সর্বোচ্চ সংখ্যক ৪৯২ করোনাভাইরাস সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। যার ফলে স্বাভাবিকভাবে নতুন করে আরও কিছু এলাকায় ঝুঁকি বেড়েছে। এদিনের হিসাব অনুযায়ী পুরাতন ঢাকার অনেক এলাকায় অন্য যেকোনও এলাকার তুলনায় সংক্রমণ বেশি।

যেমন- আজিমপুরে ১৫ জন শনাক্ত হয়েছেন ইতোমধ্যে। বাবুবাজারে সংখ্যাটা ১১। বংশালে ৩১জন শনাক্ত হয়েছেন, চকবাজারে ১৯ ও গেন্ডারিয়ায় ২১ জন।

যাত্রাবাড়িতে সংক্রমণ ধরা পড়েছে ৩৩ জনের মধ্যে। এছাড়া লালবাগে সংক্রমণ ধরা পড়েছে ৩১ জনের মধ্যে।

সুত্রাপুরে করোনাভাইরাস ধরা পড়েছে ১২ জনের মধ্যে। ওয়ারীতে এই সংখ্যা ৩০। শাখারীবাজারে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে ১৮ জনের মধ্যে।

অন্য এলাকার মধ্যে সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ হয়েছে মোহাম্মদপুরে ৩৮ জন। পুরো মিরপুর এলাকায় ৭০ জনের মধ্যে করোনাভাইরাস ধরা পড়েছে, যার মধ্যে মিরপুর ১৪ তেই ২১ ও টোলারবাগে ১৯ জন।

এছাড়া ধানমন্ডিতে ২৩, বাসাবোয় ১৯, মহাখালীতে ১৪, মগবাজারে ১৬, রাজারবাগে ২৮, উত্তরায় ২৩ ও শাহবাগে ১১ জন করোনারোগী শনাক্ত হয়েছে।

বৈশাখী নিউজইডি